ইসরায়েল থেকে মুখ ফিরিয়ে নিলেন শাকিরা

News


ফিলিস্তিনিদের ওপর ইসরায়েলি হত্যাযজ্ঞের কারণে দেশটিতে কনসার্ট না করার জন্য বিশ্বখ্যাত পপ গায়িকা শাকিরাকে আহ্বান জানিয়েছিলেন অনেক খ্যাতনামা ব্যক্তি ও সংগঠন। অবশেষে তেলআবিবে কনসার্ট করার সেই পরিকল্পনা থেকে সরে আসার কথা জানালেন তিনি।

যদিও কনসার্ট থেকে সরে আসার পেছনে আরও দুটি বিষয় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। গ্র্যামি-জয়ী কলম্বিয়ান শিল্পী শাকিরার পূর্ব-পুরুষ ছিলেন লেবানিজ। তেলআবিব থেকে কনসার্ট করার পর লেবাননেও কনসার্ট করার কথা ছিল শাকিরার। কিন্তু দেশটিতে অনেকেই দাবি তোলেন, ইসরায়েলে পারফর্ম করলে লেবাননের কনসার্ট যাতে বাতিল করা হয়।

অন্যদিকে, শাকিরা জাতিসংঘের শিশু সংস্থা ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত। ফিলিস্তিনি শিশুদের ওপর ইসরায়েলি নৃশংসতার অনেক কিছুই নথিবদ্ধ করা আছে ইউনিসেফের। ইসরায়েলকে শিক্ষা ও সাংস্কৃতিকভাবে বয়কট করার আন্দোলন পিএসিবিআই বলছে, মানবাধিকার লঙ্ঘন ও বর্ণবিভেদ (অ্যাপার্থেইড) ধামাচাপায় অংশ নেয়া থেকে বিরত থাকার বিশেষ বাধ্যবাধকতা রয়েছে শিল্পী ও বিশেষ করে জাতিসংঘের শুভেচ্ছা দূতদের। এটাও একটা বড় কারণ হতে পারে।

এদিকে, শাকিরার এই ঘোষণাকে স্বাগত জানিয়েছে ফিলিস্তিনিরা। এ খবর দিয়েছে ইলেক্ট্রনিক ইন্তিফাদা। এক বিবৃতিতে বলেছে, শাকিরার নাম ব্যবহার করে গাজার সাম্প্রতিক হত্যাযজ্ঞকে ধামাচাপা দেয়ার যে পরিকল্পনা করেছিল ইসরাইল, তা ব্যর্থ হয়েছে।

বিডি-প্রতিদিন/৩১ মে, ২০১৮/মাহবুব


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *